শিক্ষার ডিজিটাল রূপান্তরেই গড়বে ডিজিটাল বাংলাদেশ

Posted on 2017-07-30

বেসিস সভাপতি জনাব মোস্তাফা জব্বার বলেছেন, “ডিজিটাল বাংলাদেশে ধারনা এখন দেশের অতি প্রত্যন্ত অঞ্চলের মানুষের কাছেও স্বপ্ন থেকে বাস্তবের রূপ পেয়েছে। তারা প্রতি মুহূর্তে ডিজিটাল বাংলাদেশের সুফল পাচ্ছে। জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন সোনার বাংলা গড়তে তাই আমরা ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ছি। ডিজিটাল শিক্ষাব্যবস্থা হচ্ছে সেই স্বপ্নের ভিত। আমাদেরকে সেই শিক্ষাব্যবস্থাকে ডিজিটাল করতে হবে। আজ এখানে যার সূচনা হলো তা শিক্ষায় ডিজিটাল বীজ বপন করা মাত্র। একদিন এই কাজ মহীরূহে পরিণত হবে। ২৯ জুলাই ২০১৭ সকাল ১০টায় শরিয়তপুরের আঙ্গারিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষার ডিজিটাল ব্যবস্থাপনা পদ্ধতির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি একথা বলেন। বেসিস সদস্য নেটিজেন আইটি লিমিটেড এর এডুমেন সফটওয়্যার দিয়ে স্কুলটির ডিজিটাল ব্যবস্থাপনার সূচনা করা হয়। স্কুলের প্রধান শিক্ষক আবুল কালাম আজাদ এর সভাপতিত্ত্বে অনুষ্ঠানে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ব্যবস্থাপনা বিষয়ে উপস্থাপনা করেন নেটিজেন লি: এর শাহাদাৎ হোসেন এবং ডিজিটাল শিক্ষা সফটওয়্যার উপস্থাপন করেন বিজয় ডিজিটাল এর প্রধান নির্বাহি জেসমিন জুঁই। মোস্তাফা জব্বার তার বক্তব্যে আরও বলেন, শিক্ষার ব্যবস্থাপনার সাথে বইকে সফটওয়্যারে রূপান্তর করতে হবে এবং ক্লাশরুম ব্যবস্থাপনাকেও ডিজিটাল করতে হবে। তিনি শিক্ষক-শিক্ষিকা এবং অভিভাবক-অভিভাবিকাদেরকে ছাত্র-ছাত্রীদেরকে ইন্টারনেট ব্যবহার করার সুযোগ দানের আহ্বান জানান। সনাতনী ধারনায় তাদেরকে সামাজিক যোগযোগ মাধ্যম ও কম্পিউটার গেমস থেকে দূরে রাখা ঠিক নয় বলেও তিনি জানান। তিনি ছাত্র-ছাত্রীদেরকে দামী পোশাক কিনে দেবার বদলে ডিজিটাল যন্ত্র কিনে দেবার আহ্বান জানান। তিনি শিক্ষকদেরকে ডিজিটাল যুগের শিক্ষক হিসেবে নিজেদেরকে প্রস্তুত করার অনুরোধও করেন। অনুষ্ঠানের বক্তারা শিক্ষার ডিজিটাল রূপান্তরে বিজয়-নেটিজেন-এর এই উদ্যোগকে স্বাগত জানান এবং শরিয়তপুরের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বিজয় ডিজিটাল শিক্ষা এবং এডুমেন সফটওয়্যার প্রচলন করার অঙ্গীকার করেন।

 

কপিরাইট © মোস্তাফা জব্বার

প্রযুক্তি এবং সার্বিক ব্যবস্থাপনায়: আনন্দ কম্পিউটার্স